নিজস্ব প্রতিবেদক :

অবশেষে চালু হয়েছে সৌদি প্রবাসী শ্রমিকদের বিশেষ ফ্লাইট। অবতরণের অনুমতি পাওয়ায় আজ রবিবার ভোররাত ৩টায় ২৭১ জন শ্রমিক নিয়ে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইট সৌদি আরবের জেদ্দার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়। বিমানের আরও বিশেষ ৫টি ফ্লাইট আজ সৌদি আরবের উদ্দেশে শাহজালাল ছেড়ে যাবে। সন্ধ্যায় সৌদি এ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্সের ফ্লাইটও চালু হচ্ছে বলে জানা গেছে।

এদিকে, টিকেট রিকনফার্ম করতে না পেরে শনিবাররে মতো আজ রবিবারও রাজধানীর কারওয়ান বাজারে সৌদি এয়ারের অফিসের সামনে বিক্ষোভ করেছেন প্রবাসী শ্রমিকরা। সকাল থেকে শতশত টিকেট প্রত্যাশী সোনারগাঁও হোটেল কম্পউন্ডে সৌদি এয়ারের অফিসে ভীড় করেন। কিন্তু কর্তৃপক্ষ টিকেট রিকনফার্মের কাজ শুরু না করায় এ নিয়ে ক্ষুব্ধ হয়ে উঠেন অনেকে। এক পর্যায়ে তারা রাস্তায় বসে পড়েন। এতে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে। পরে পুলিশ এসে শ্রমিকদের বুঝিয়ে রাস্তা থেকে সরিয়ে নেন।

সৌদিয়া এয়ারলাইন্স এর সামনে সৌদি প্রবাসীদের ভিড়।

সৌদি এয়ারের ম্যানেজার জাহিদুল ইসলাম জানিয়েছেন, আজ সন্ধ্যা থেকে তারা বিশেষ ফ্লাইট চালু করছেন। এর আগে গতকাল শনিবার সৌদি আরবে বাংলাদেশ থেকে যাওয়া ফ্লাইট অবতরণের অনুমতি না পাওয়ায় জটিলতা দেখা দেয়। এখন একসঙ্গে বেশি যাত্রীর চাপ সামলাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে তাদের। তবে সব ঠিক হয়ে যাবে।

সংশ্লিষ্টরা জানান, সৌদিতে অবতরণের অনুমতি পাওয়ায় আজ বিমানের ৫টি বিশেষ ফ্লাইট সৌদি যাবে। এছাড়া দুটি ফ্লাইট যাবে দুবাইয়ে। লকডাউনের কারণে নিয়মিত ফ্লাইট বন্ধ থাকায় গত শনিবার বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ৫টি ও সৌদি এরাবিয়ান এয়ারলাইন্সের ২টি বিশেষ ফ্লাইটে রিয়াদ ও জেদ্দায় যাওয়ার কথা ছিল কয়েক হাজার শ্রমিকের। কিন্তু সৌদি সরকার ফ্লাইটের অবতরণ অনুমতি না দেওয়ায় ফ্লাইটগুলো বাতিল করা হয়।

এছাড়া গতকাল বিমানের দুবাইগামী আরও ২টি, ইউএস বাংলার ১টি ও ফ্লাই দুবাইয়ের ২টি ফ্লাইট বাতিল হয়েছে যাত্রী কম থাকার কারণে। সব মিলিয়ে দেখা গেছে শনিবার মোট ১৪টি বিশেষ ফ্লাইট ঢাকা থেকে সৌদি ও দুবাইয়ের বিভিন্ন গন্তব্যে যাওয়ার কথা থাকলে শেষ পর্যন্ত বালিত হয়েছে ১২টি। শুধু দুবাইগামী ২টি বিশেষ ফ্লাইট ঢাকা ছেড়েছে।

  • সংবাদ সংলাপ/এমএস/দু

Sharing is caring!